সর্বশেষ

ট্রাম্পের যুদ্ধক্ষমতা কমাতে প্রতিনিধি পরিষদে প্রস্তাব পাস

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প যেন ইরানের বিরুদ্ধে সামরিক ব্যবস্থা নিতে না পারেন সেজন্য তার যুদ্ধক্ষমতা কমাতে প্রতিনিধি পরিষদে প্রস্তাব পাস হয়েছে। এ প্রস্তাবে প্রেসিডেন্টের যুদ্ধ শুরু করার ক্ষমতা খর্ব করা হয়েছে।
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশেই ইরাকের বাগদাদ আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের কাছে ড্রোন হামলায় প্রভাবশালী ইরানি কমান্ডার কাসেম সোলেমানি নিহত হয়েছিলেন।
এর বদলা নিতে ইরান ইরাকের দুটি মার্কিন ঘাঁটিতে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়ে পাল্টা জবাব দেয়। এ অবস্থায় দুই দেশের মধ্যে যুদ্ধ শুরুর আশঙ্কা দেখা দিলে গত বুধবার প্রতিনিধি পরিষদে ভোটাভুটির ঘোষণা দিয়েছিলেন স্পিকার ন্যান্সি পেলোসি। পরে বৃহস্পতিবার ট্রাম্পের যুদ্ধক্ষমতা কমাতে মার্কিন প্রতিনিধি পরিষদ এই প্রস্তাব পাস করে।
বৃহস্পতিবার ডেমোক্র্যাট দল নিয়ন্ত্রিত প্রতিনিধি পরিষদে প্রস্তাবটি উত্থাপন করেন বিরোধী ডেমোক্র্যাট দলের সদস্যরা। প্রস্তাবের পক্ষে পড়ে ২২৪ ভোট এবং বিপক্ষে পড়ে ১৯৪ ভোট। প্রস্তাবটির বিপক্ষে ভোট দিয়েছেন মূলত ট্রাম্পের দল রিপাবলিকানের সদস্যরা।
বৃহস্পতিবার প্রতিনিধি পরিষদ পাস হওয়া প্রস্তাবটি সিনেটে ওঠা একটি প্রস্তাবনার মতোই। এতে বলা হয়েছে, কংগ্রেস থেকে পরবর্তীতে কোনো অনুমোদন না পেলে প্রেসিডেন্টকে ৩০ দিনের মধ্যে ইরানের বিরুদ্ধে সামরিক পদক্ষেপ নেওয়া বন্ধ করতে হবে।
তবে এ পদক্ষেপটি রিপাবলিকান অধ্যুষিত সিনেটে পাস হওয়া দুরূহ হবে বলেই মনে করা হচ্ছে। কারণ, রিপাবলিকনরা বেশিরভাগই সোলেমানিকে হত্যার ট্রাম্পের সিদ্ধান্তকে সমর্থন করেছেন।

আরও