সর্বশেষ

দিল্লিতে গোয়েন্দা কর্মকর্তাকে হত্যা, আপ নেতার বিরুদ্ধে মামলা

 ভারতের দিল্লিতে সংশোধিত নাগরিকত্ব আইনের (সিএএ) বিরোধীদের সঙ্গে এর সমর্থকদের টানা সংঘর্ষের পঞ্চম দিনে এসে গতকাল বৃহস্পতিবার পরিস্থিতি মোটামুটি শান্ত হয়েছে। বুধবার রাত থেকে উত্তর-পূর্ব দিল্লির বেশির ভাগ এলাকায় নতুন করে কোনো সহিংসতার খবর পাওয়া যায়নি।

এরইমধ্যে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৮ জনে। আহত অন্তত ২০০ মানুষ। তাদের অনেকের অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে মৃত্যুর সংখ্যা বাড়তে পারে। এখনও অনেক এলাকায় থমথমে পরিস্থিতি বিরাজ করছে। ফের হামলার আশঙ্কায় অনেক মুসলিম নাগরিককে বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র চলে যেতে দেখা গেছে। বিপরীতে অনেক মুসলিমকে প্রতিবেশী হিন্দুরা আশ্রয় দিচ্ছে বলেও খবর পাওয়া গেছে।

এদিকে বুধবার সকালে দিল্লির একটি ড্রেন থেকে অঙ্কিত শর্মা নামে এক গোয়েন্দা কর্মকর্তার লাশ উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় আম আদমি পার্টি নেতা তাহির হুসেনের বিরুদ্ধে অঙ্কিত শর্মাকে খুন ও অগ্নিসংযোগের অভিযোগে মামলা হয়েছে। তাদে দল থেকে সাসপেন্ড করা হয়েছে বলেও খবর রয়েছে।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এই মামলা দায়ের হয়েছে।

বুধবার অঙ্কিত শর্মার মরদেহ উদ্ধারের পরই, তার বাবা অভিযোগ করেন, তাহির হুসেনের অনুগামীরাই ছেলেকে খুন করেছে। আরও অভিযোগ করেন, মারধরের পর তার ছেলেকে গুলি করা হয়েছে, অঙ্কিত শর্মার মরদেহ ময়নাতদন্তে পাঠানো হয়।

এর আগে, অঙ্কিত শর্মার মৃত্যুর ঘটনা নিয়ে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের নাম নিয়েছিলেন বিজেপি নেতা কপিল মিশ্র। তিনি দাবি করেছিলেন, মুখ্যমন্ত্রী কেজরিওয়াল এবং তাহির হুসেনের ফোন কলের রেকর্ড দেখলেই অঙ্কিত শর্মার মৃত্যুতে তাঁদের জড়িত থাকার প্রমাণ পাওয়া যাবে।

 

আরও