যুক্তরাষ্ট্রে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড়, অন্তত ২৩ জনের প্রাণহানি

 যুক্তরাষ্ট্রে একটি শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আঘাত হেনেছে। এতে অন্তত ২৩ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। আহত হয়েছে আরও অনেকে। স্থানীয় সময় ৪ মার্চ মঙ্গলবার ভোরে টেনেসি অঙ্গরাজ্য ও সংলগ্ন এলাকায় ঝড়টি আঘাত হানে। জরুরি বিভাগ থেকে প্রলয়ঙ্করী এ ঘূর্ণিঝড় ও প্রাণহানির খবর নিশ্চিত করা হয়েছে।

টেনেসি ইমার্জেন্সি ম্যানেজমেন্ট এজেন্সি জানিয়েছে, ঝড়ে চার কাউন্টিতে ২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। পুলিশ জানিয়েছে, এরমধ্যে ঝড়ের ধ্বংসস্তূপে চাপা পড়ে দুইজনের মৃত্যু হয়েছে।

ঝড়টি প্রথম ন্যাশভিলের প্রায় ১৬০ কিলোমিটার পশ্চিমে অবস্থিত ছোট্ট শহর কেমডেনের কাছে আঘাত হানে। সেখানে কয়েকজন হতাহত হয়। পরে এটি ১৪০ কিলোমিটার পূর্বে অবস্থিত ছোট্ট শহর কুকভিলে আঘাত হানে। সেখানেও প্রাণহানির ঘটনা ঘটে।

ঝড়ের তাণ্ডব শুরু হলে লোকজন জীবন বাঁচাতে ঘরবাড়ি থেকে বেরিয়ে আসে। উপদ্রুত এলাকার বাসিন্দাদের জন্য ইতোমধ্যেই জরুরি আশ্রয়কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। স্কুলগুলো বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে।

উপদ্রুত এলাকাগুলোতে হতাহতের পাশাপাশি ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির খবর পাওয়া গেছে। অনেক ভবন মারাত্মক ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। বৈদ্যুতিক লাইন তছনছ হয়ে গেছে। ফলে বিদ্যুৎহীন হয়ে পড়েছে হাজার হাজার মানুষ। পশ্চিম ন্যাশভিলের একটি বিমানবন্দরে বেশ কয়েকটি হ্যাঙ্গার ধ্বংস হয়ে গেছে।

টুইটারে দেওয়া এক পোস্টে ঝড়টিকে অত্যন্ত ভয়ঙ্কর হিসেবে আখ্যায়িত করেছে যুক্তরাষ্ট্রের ন্যাশনাল ওয়েদার সার্ভিস।

ন্যাশভিল পুলিশ আকাশ থেকে তোলা ঝড়ের কিছু ছবি প্রকাশ করেছে। এতে দেখা যায় বহু ভবনের ছাদ উড়ে গেছে। অন্তত একটি এলাকায় দেখা গেছে, ঘরবাড়িগুলো ধ্বংসস্তূপে পরিণত হয়েছে।

টুইটারে দেওয়া এক পোস্টে উপদ্রুত এলাকায় অনুসন্ধান তৎপরতা চালানোর ঘোষণা দিয়েছেন গভর্নর বিল লি। এছাড়া উদ্ধারকারী দল মোতায়েন, রাজ্যজুড়ে আশ্রয়কেন্দ্র খোলা এবং ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাগুলোতে জরুরি বিভাগের কর্মীদের কথা জানিয়েছেন তিনি।

মেয়র জন কুপার জানিয়েছেন, ৪৮টি ভবন ধসে পড়েছে। উপদ্রুত এলাকার ১৫০ জনকে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ঝড়ের ফলে টেনেসিতে ডেমোক্র্যাটিক পার্টির প্রার্থী বাছাইয়ের ভোটাভুটি এক ঘণ্টা দেরিতে শুরু হয়েছে। সুপার টিউসডে নামে খ্যাত এই ভোটাভুটিতে যে ১৪টি রাজ্য অংশ নিচ্ছে তার মধ্যে টেনেসি-ও রয়েছে।

 

আরও