করোনা আতংকে কাঁপছে সিলেট

 সারা সিলেট জুড়ে বাড়লো করোনার ভয়। বৈশ্বিক মহামারী এ ভাইরাস বাংলাদেশে ইতিপূর্বে দেখা দিলেও বৃহত্তর সিলেটের কেউ আক্রান্ত হননি। রবিবার ঢাকার আইইডিসিআর দেশে নতুন করে ১৮ জন আক্রান্তের কথা জানায়। তখনো সিলেটবাসী জানত না যে, আক্রান্ত এই ১৮ জনের মধ্যে একজন সিলেটের। রবিবার রাতে গণমাধ্যমে প্রকাশ পায় আক্রান্ত ১৮ জনের মধ্যে সিলেট শহরের একজন রয়েছেন। মুহূর্তের মধ্যে সিলেটের সকল শ্রেণীর মানুষ আতংকিত হয়ে পড়েন।

এদিকে সিলেটে ওই ব্যক্তি আক্রান্তের খবর প্রকাশের দুই ঘণ্টার মধ্যে আসে অপর একটি দুঃসংবাদ। পার্শ্ববর্তী মৌলভীবাজারের রাজনগর উপজেলায় মারা যাওয়া এক ব্যক্তি করোনা আক্রান্ত ছিলেন এমন খবরে বৃহত্তর সিলেটে ছড়িয়ে পড়ে বড় ধরতণের আতংক। একই দিনে বৃহত্তর সিলেটে দুই জন আক্রান্তের খবরে মানুষের মাঝে সংশয় বিরাজ করছে আরো কত মানুষ যে করোনা আক্রান্ত আছেন।

মৌলভীবাজারের রাজনগরের ওই ব্যক্তি শনিবার বাড়িতে সকালে জর, সর্দি নিয়ে মারা যান। এরপরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এর ডাক্তাররা এসে প্রয়োজনীয় সকল নমুনা সংগ্রহ করে ঢাকার আইইডিসিআরে পরীক্ষা করার জন্য পাঠায়। সাথে সাথে সংশ্লিষ্টরা তার পরিবারকে হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার নির্দেশ দিয়ে যাওয়া হয়।

সিলেট শহরের করোনা আক্রান্ত ব্যক্তি নগরীর অভিজাত এলাকায় তার বাসা। প্রতিদিন সকালে জগিং করতেন, জগিং এর সময় তার সঙ্গীও থাকতেন অনেকে। তাদের মধ্যে সংক্রমন ছড়ায়নি তো? এমন প্রশ্ন সিলেটের মানুষের মাঝে বারবার ঘুরপাক খাচ্ছে। পরিবারের সদস্যদের এরই মধ্যে লকডাউন করা হয়েছে।

সিলেটে ইতিমধ্যে ১৩ জন নারী, পুরুষের করোনাভাইরাস পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। তাদের কারো শরীরে মহামারী এ রোগ ধরা পড়েনি। এতোদিন করোনাভাইরাসের কোন রোগী সনাক্ত না হওয়ায় স্বস্তিতে ছিলেন গোটা সিলেটের মানুষ। রবিবার রাতে একে একে করে সিলেট ও মৌলভীবাজারের মোট দুই জনের শরীরে করোনাভাইরাস ধরা পড়ায় মানুষের মধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে আতংক। সিলেটের মানুষ যে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলছিলেন সেটা এখন পরিণত হল অস্বস্তিতে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সিলেট বিভাগীয় অফিসের সহকারী পরিচালক ডা. আনিছুর রহমান জানান, সিলেটে আক্রান্ত ব্যক্তি কোন প্রবাসীর কাছে যাননি। কমিউনিটির কারো কাছ থেকে ওই ব্যক্তি আক্রান্ত হয়েছেন বলে তিনি আশঙ্কা করছেন।

এক্ষত্রে ডা. আনিছ বলছেন, যদি কমিউনিটির কাছ থেকে তিনি আক্রান্ত হন তাহলে সিলেটে আরো করোনা আক্রান্ত লোক থাকতে পারেন।

 

আরও