স্বামী আক্রান্ত হলেও স্ত্রীর করোনা নেগেটিভ

মাদারীপুরের শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের এক নারী চিকিৎসকের চিকিৎসক স্বামী করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তবে আক্রান্ত চিকিৎসকের স্ত্রীর রিপোর্টে করোনা নেগেটিভ এসেছে।

এর আগে শনিবার (১১ এপ্রিল) করোনায় আক্রান্ত হন ওই চিকিৎসক। তিনি ঢাকা থেকে স্ত্রীর কাছে বেড়াতে শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডক্টরস কোয়ার্টারে এসে করোনায় আক্রান্ত হন।

এখানে আসার পর করোনার উপসর্গ দেখা দিলে তার নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআরে পাঠানো হয়। পরে তার রিপোর্টে করোনা পজেটিভ আসে। ওই দিন রাতেই তাকে ঢাকার কুয়েত মৈত্রী হাসপাতালে নেয়া হয়।

এ ঘটনায় শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ডক্টরস কোয়ার্টার লকডাউন করা হয়। ওই ভবনে বাস করা চার চিকিৎসক পরিবারকে হোম কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়। ফলে শিবচরের চিকিৎসা ব্যবস্থা হুমকির মুখে পড়ে।

এ অবস্থায় আক্রান্ত চিকিৎসকের সংস্পর্শে আসায় স্ত্রী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের প্যাথলজিস্ট, সহকারী প্যাথলজিস্টসহ কয়েকজনের নমুনা ঢাকায় পাঠানো হয়। বুধবার সকালে পরীক্ষার ফলাফলে নেগেটিভ আসে আক্রান্ত চিকিৎসকের স্ত্রীর। রিপোর্টে করোনা নেগেটিভ আসায় কিছুটা স্বস্তি এসেছে সবার মনে।

শিবচর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. শশাঙ্ক চন্দ্র ঘোষ বলেন, আক্রান্ত চিকিৎসকের স্ত্রী আমাদের হাসপাতালের চিকিৎসক। নমুনা পরীক্ষার পর তার করোনা নেগেটিভ এসেছে। তিনি ভালো আছেন এবং সুস্থ আছেন।

দেশের প্রথম লকডাউন হওয়া উপজেলা শিবচরে এ পর্যন্ত এক চিকিৎসকসহ ১৫ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে একজন মারা গেছেন। দুজন সুস্থ ও বাকিরা আইসোলেশনে আছেন।

 

আরও