ফ্রান্সে করোনায় একদিনে সর্বোচ্চ ১৪৩৮ মৃত্যুর রেকর্ড

সারা বিশ্বে যে কয়টি দেশে করোনা রুদ্র রূপ নিয়েছে ফ্রান্স তাদের অন্যতম। করোনায় মৃত ও আক্রান্তের দিক দিয়ে দেশটি শীর্ষ চারে অবস্থান করছে। ফ্রান্সে এ ভাইরাসের প্রকোপ স্তিমিত হওয়ার বদলে দিন দিন যেন আরও ভয়াল হয়ে উঠছে। শেষ ২৪ ঘণ্টায় এখানে করোনায় নতুন করে আরও ১ হাজার ৪৩৮ জনের মৃত্যু যোগ হয়েছে। একদিনের ব্যবধানে মৃতের সংখ্যা বৃদ্ধিতে এটি সর্বোচ্চ।

তবে এটি কেবলমাত্র শেষ ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃতের সংখ্যা নয়। এর সঙ্গে ইস্টার উইকেন্ডের ৩ দিনের ছুটিকালে বয়স্কদের নার্সিং হোমগুলোতে মৃতের সংখ্যাও যোগ হয়েছে বলে জানিয়েছে ফ্রান্সের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়।

এর মধ্য দিয়ে সরকারি হিসেবে দেশটিতে করোনায় মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৭ হাজার ১৬৭ জনে। মোট শনাক্ত ১ লাখ ৪৭ হাজার ৮৬৩ জন। এদের মাঝে সেরে উঠেছেন ৩০ হাজার ৯৫৫ জন। এছাড়া চিকিৎসাধীনদের মধ্যে ৬ হাজার ৪৫৭ জনের অবস্থা গুরুতর।

বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) ফ্রান্সের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের বরাত দিয়ে আন্তর্জাতিক সংবাদ সংস্থা রয়টার্স এসব তথ্য জানায়।

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার (১৫ এপ্রিল) দেশটির স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিচালক জেরোম সালোমন বলেন, ফ্রান্সে এখনও করোনার প্রকোপ শীর্ষ পর্যায়ের দিকে আছে। ফলে মানুষজনকে কঠোরভাবে ঘরে থাকার বিধিনিষেধ মানতে হবে।

তবে, আশা কথা এই যে, সর্বশেষ প্রতিবেদনে দেশটিতে করোনায় নপতুন আক্রান্তের সংখ্যা কিছুটা কমতির দিকে। এতে বোঝা যায়, লকডাউন কাজ করছে। এটিই ফ্রান্সে করোনার প্রকোপ কমার প্রথম লক্ষণ। আমরা একে স্বাগত জানাই। কিন্তু খুব সাবধানতার সঙ্গে আগামী দিনগুলোতে কী দাঁড়ায় তার দিকে নজর রাখতে হবে।

 

আরও