১০ দিনেও মিলছে না করোনা রিপোর্ট

করোনাভাইরাস পরীক্ষার ফল না পাওয়ায় বগুড়ার নন্দীগ্রামে করোনা নিয়ে সংশয় তৈরি হয়েছে। ১০ দিনেও মিলেনি উপজেলার ৬০ জনের করোনার রিপোর্ট।

জানা গেছে, গত ২ জুন থেকে ১৩ জুন পর্যন্ত নন্দীগ্রাম উপজেলার সন্দেহভাজন ৬০ জনের নমুনা সংগ্রহ করে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়। কিন্তু গত ১০ দিনেও এসব পরীক্ষার ফল হাতে পায়নি উপজেলা স্বাস্থ্য বিভাগ।

পরিস্থিতি অনুযায়ী দ্রুত স্বাস্থ্য সেবা ও প্রশাসনিক পদক্ষেপ নিতে পারছে না স্বাস্থ্য বিভাগ। ফলে উপজেলায় করোনার বিস্তারের শঙ্কা দেখা দিয়েছে। নমুনা সংগ্রহের ২৪ ঘণ্টার মধ্যে সন্দেহভাজনদের করোনা পরীক্ষার ফল দেওয়ার কথা।

কিন্তু বাস্তবে ২৪ ঘণ্টার বদলে ১০ দিনও সময় লেগে যাচ্ছে। তার ওপর অনেকের নেই উপসর্গ, যার কারণে কে করোনা রোগী আর কে সুস্থ তা টেস্ট ছাড়া ধারণা করাও কঠিন। নমুনার ফলাফল না আসায় উদ্বিগ্ন সাধারণ মানুষ।

জানতে চাইলে নন্দীগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের মেডিক্যাল অফিসার ও দায়িত্বপ্রাপ্ত করোনা ফোকাল পারশন ডা. নাজমুল হোসাইন বলেন, বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে প্রতিদিন ১৮৮টি নমুনা পরীক্ষা করা যায়। জেলার ১২টি উপজেলা থেকে নমুনা অনেক আসে। যে কারণে জেলায় করোনাভাইরাসের নমুনা পরীক্ষার সংখ্যা কয়েক গুণ বেড়ে গেছে। বেড়ে যাওয়ার কারণে রিপোর্ট পেতেও বিলম্ব হচ্ছে। নন্দীগ্রাম উপজেলায় এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১২ জন। এরমধ্যে দুইজন সুস্থ হয়েছেন।

 

আরও