সর্বশেষ

অভিনেত্রীকে খুন-ধর্ষণের হুমকি, যুবক গ্রেফতার

ভারতীয় অভিনেত্রী অরুণিমা ঘোষকে হত্যা ও ধর্ষণের হুমকি দিয়ে আসছিলেন এক যুবক। ৩২টি ফেক সোশ্যাল মিডিয়া অ্যাকাউন্ট এবং অসংখ্য মোবাইল নম্বর দিয়ে হুমকি দিয়ে আসছিলেন তিনি। একপর্যায়ে অভিনেত্রীর বাড়ির সামনে এসে তাণ্ডব শুরু করেন ওই যুবক। পরে গত রোববার স্থানীয় সময় রাতে সেই যুবককে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। তবে কী কারণে হুমকি দেওয়া হয় তা এখনো জানা যায়নি।

কলকাতা পুলিশের বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম হিন্দুস্তান টাইমস জানায়, ওই যুবকের নাম মুকেশ সাউ। গত কয়েকদিন ধরেই তিনি অরুণিমাকে নানাভাবে হুমকি দিয়ে আসছিলেন। শেষে রোববার অরুণীমার বাড়ির সামনে এসে চিৎকার ও শোরগোল শুরু করলে সঙ্গে সঙ্গেই পুলিশে অভিযোগ দেন অভিনেত্রী। এরপর পুলিশের একটি দল এসে মুকেশকে গ্রেপ্তার করে থানায় নিয়ে যায়। এই ঘটনার পর থেকে অরুণিমার নিরাপত্তা ব্যবস্থা আরও কঠোর করা হয়েছে।

পুলিশ বলছে, অরুণিমার বাড়ির ঠিকানা এবং ফোন নম্বর মুকেশ কীভাবে পেল তা নিয়ে তদন্ত শুরু হয়েছে। অরুণিমাকে কেনই বা তিনি হুমকি দিতেন সেই তথ্যও জানার চেষ্টা করছে পুলিশ।

উল্লেখ্য, ২০০৪ সালে ‘সূর্য্য’ ছবি দিয়ে বাংলা চলচ্চিত্রে অভিনয়ের অভিষেক হয়। ২০০৮ এ তিনি সহ-শিল্পী বাংলা চলচ্চিত্রের জনপ্রিয় অভিনেতা প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায় ও পাওলি দামের সঙ্গে এক সিনেমায় কাজ করেছিলেন। অরুণিমাকে পাওলি দাম, বিক্রম চ্যাটার্জী ও ইন্দ্রেনীল সেনগুপ্তের সঙ্গে ‘এলার চার অধ্যায়’ ছবিতে দেখা গিয়েছিল। ২০১৪ সালে, রাহুল ব্যানার্জী ও বিশ্বনাথ বসুর সঙ্গে ‘আমার আমি’ চলচ্চিত্রে তিনি অভিনয়ে তার কর্মক্ষমতার পরিচয় দেন।

আরও