মায়ের পর একসঙ্গে ইউপি মেম্বার হলেন ৩ বোন

নাটোরের নলডাঙ্গায় ইউপি নির্বাচনে একসঙ্গে তিন বোন সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডের মেম্বর নির্বাচিত হয়েছেন। তাদের মা এর আগে একাধিকবার নারী মেম্বার নির্বাচিত হয়েছেন। মায়ের জনসেবামূলক কার্যক্রম দেখেই নির্বাচনে অংশ নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন তিন বোন।

নির্বাচিতরা হলেন-হালিমা বেগম (৪৩), নাসিমা বেগম (৪১) ও শাহনাজ পারভীন (৩৯)। পঞ্চম ধাপে বুধবার (৫ জানুয়ারি) এ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়।

হালিমা বেগম বিপ্র বেলঘড়িয়া ইউনিয়নের ১, ২ ও ৩ নম্বর ওয়ার্ড, নাসিমা বেগম ৪, ৫ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ড এবং শাহনাজ পারভীন একই উপজেলার ছাতনী ইউনিয়ন পরিষদের ৪, ৫ ও ৬ নম্বর ওয়ার্ড থেকে নির্বাচিত হয়েছেন।

এলাকাবাসীদের সঙ্গে কথা বলে জানা যায়, নির্বাচিতদের মা আলেয়া বেগম ৫ নম্বর বিপ্রবেলঘড়িয়া ইউনিয়নে একাধিবার সংরক্ষিত নারী মেম্বার নির্বাচিত হয়ে আসছেন। মাকে মানুষের বিপদে-আপদে পাশে দাঁড়াতে দেখে এবং জনগণের সেবা করতে তিন বোন নির্বাচনে অংশ নেন।

বড় বোন হালিমা বেগম বলেন, বাবা (মৃত) আব্দুস সাত্তার একবার মেম্বার নির্বাচনে দাঁড়িয়ে মাত্র দুই ভোটে পরাজিত হয়েছিলেন। কিন্তু মা আলেয়া বেগম বারবার সংরক্ষিত নারী ওয়ার্ডে মেম্বার নির্বাচিত হয়েছেন। মানুষের সেবা করে তাদের দোয়া ও ভালোবাসা অর্জন করেছেন। মানুষের মুখে মুখে মায়ের নাম রয়েছে। মায়ের মানবসেবা দেখেই আমরা তিন বোন নির্বাচনে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিই।

তিনি আরও বলেন, এলাকার মানুষ তাদের মন উজাড় করে ভোট দিয়েছেন। ব্যাপক ব্যবধানে আমাদের নির্বাচিত করেছেন। আমরা এখন এলাকাবাসীর পাশে দাঁড়াতে চাই। তারা যাতে সব ধরনের সুযোগ-সুবিধা পান সেই চেষ্টা করবো।

স্থানীয়রা জানান, তিন বোনের কৃষক স্বামীরা তাদের এই বিজয়ে সক্রিয় ভূমিকা রেখেছেন। তিন মেয়ের বিজয়ে দারুণ খুশি মা আলেয়া বেগম।

স্থানীয় ছাতনী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি দুলাল সরকার বলেন, মায়ের পর এবার তার তিন মেয়ের এমন বিজয়ে আমরা উচ্ছ্বসিত। তারা ভালোভাবে তাদের দায়িত্ব পালন করবেন বলে আমরা আশাবাদী।

আরও